ঢাকা মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ২১, ২০২১



আবারও পোশাক শ্রমিকের আক্রোশের স্বীকার হলেন মানবসম্পদ পেশাজীবী: কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক: আবারও শ্রমিকের আক্রোশের স্বীকার হলেন তৈরি পোশাক কারখানার মানবসম্পদ পেশাজীবীরা। নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলার টোটাল ফ্যাশন লিমিটেড এ গত ২০ মে ২০২১ এ ঈদের আগে শেষ কর্মদিবসে ১২ জন শ্রমিক ছাঁটাইকে কেন্দ্র করে এ অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে। উত্তেজিত শ্রমিকদের হামলায় কারখানার ব্যবস্থাপক কবিরুল ইসলাম ও নুসরাত আহমেদ শিপু, সিনিয়র অফিসার জাহিদুল ইসলাম, অফিসার জায়েদ আহমেদ, সিকিউরিটি অফিসার নাহিদসহ অনেকেই মারাত্মকভাবে আহত হয়। আহতদেরকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এসময় শ্রমিকরা কারখানার সিসি ক্যামেড়া, কম্পিউটার, অফিস ভবনের দরজা-জানালার কাঁচের গ্লাসসহ প্রচুর আসবাবপত্র ভাঙচুর করে।

জানা যায়, ঈদের ছুটির পর গত ২০ মে (বৃহস্পতিবার) কারখানা পুনরায় চালু হয়। ঈদের আগে ছাঁটাইকৃত শ্রমিকরা দেশীয় অস্ত্র ও লাঠিসোটা নিয়ে গেটের বাইরে অপেক্ষা করে। সকাল সাড়ে ৭টা থেকে শ্রমিকরা ভেতরে প্রবেশ করে। গেটেই সিকিউরিটি সদস্যরা শ্রমিকদের পরিচয় পত্র চেক করে ভেতরে প্রবেশ করানো অবস্থায় দীর্ঘ লাইনের সৃষ্টি হয়। এসময় সিকিউরিটি গার্ডের সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে পড়ে এক নারী শ্রমিক। সিকিউরিটি গার্ড নারী শ্রমিকের দাঁত ভেঙে দিয়েছে এই গুজব ছড়িয়ে পড়ে পুরো কারখানায়। এসময় উপস্থিত শ্রমিকদের ক্ষেপিয়ে তোলে ছাঁটাইকৃত শ্রমিকরা। মুহূর্তের মধ্যেই শ্রমিকদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এরপর তারা লোহার রড ও লাঠিসোটা নিয়ে জোরপূর্বক ভেতরে প্রবেশ করে ভাঙচুর করে।

পরে অনির্দিষ্টকালের জন্য কারখানা বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

বিকেএমইএ এর সভাপতি ও নারায়ণগঞ্জ ৫ আসনের সাংসদ জনাব সেলিম ওসমান কারখানা মালিককে সমস্যা সমাধান করে কারখানা খুলে দেয়ার পরামর্শ প্রদান করেন।

Comments


আর্কাইভ