ঢাকা বুধবার, মার্চ ৩, ২০২১



নারায়ণগঞ্জে তিন পোশাক কারখানার শ্রমিকদের বিক্ষোভ

ডেস্ক রিপোর্ট: নারায়ণগঞ্জের তিনটি তৈরি পোশাক কারখানায় শ্রমিক ছাটাই ও বেতন পরিশোধ না করে কারখানা বন্ধ ঘোষণা করায়, বিক্ষোভ করেছেন কারখানার শ্রমিকেরা।

আজ রোববার নারায়ণগঞ্জের সদর উপজেলার কায়েমপুরের ফকির নিট গার্মেন্টস, দক্ষিণ সস্তাপুরে অবস্থিত এ্যাভলুম ফ্যাশন ডিজাইন ও সিদ্ধিরগঞ্জের মুনলাক্স অ্যাপারেলস গার্মেন্টসে এই শ্রমিক অসন্তোষের ঘটনা ঘটে। পরে মালিকপক্ষের আশ্বাসে শ্রমিকেরা ফিরে যান।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আজ সকালে সদর উপজেলার ফতুল্লার কায়েমপুরে অবস্থিত রপ্তানিমুখী ফকির নিট গার্মেন্টস কারখানার শিক্ষানবিশ শ্রমিকদের বেতন দেওয়ার পর চাকরি থেকে ছাটাই করে দেওয়া হয়। এ ঘটনার প্রতিবাদে ও চাকরি পুনর্বহালের দাবিতে ওই কারখানার পাঁচ শতাধিক শিক্ষানবিশ শ্রমিক শহরের চাষাড়া এলাকায় বিক্ষোভ করেন।

এদিকে দক্ষিণ সস্তাপুরে অবিস্থত এ্যাভলুম ফ্যাশন ডিজাইন পোশাক কারখানার প্রায় পাঁচ শতাধিক শ্রমিক লকডাউন ভেঙে বেতনের দাবিতে বিক্ষোভ করেন। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

অন্যদিকে আজ সকালে সিদ্ধিরগঞ্জে মুনলাক্স অ্যাপারেলস পোশাক কারখানার শ্রমিকেরা বেতনের দাবিতে কারখানার সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করেন। কারখানা কর্তৃপক্ষ ২৬ এপ্রিল বেতন প্রদানের আশ্বাস দিলে শ্রমিকেরা বাড়ি ফিরে যান বলে জানিয়েছেন সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) কামরুল ইসলাম।

গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্র নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি এম এ শাহীন এ্যাবলুম নিট ডিজাইন লিমিটেড এর শ্রমিক বিক্ষোভ সম্পর্কে বলেন, ‘মালিকপক্ষের কারো সঙ্গে কথা বলা সম্ভব হয়নি। সরকার আগামী ১৬ এপ্রিলের মধ্যে শ্রমিকদের বেতন পরিশোধের নির্দেশ দিয়েছে। তাই তাদের ধৈর্য ধরতে বলা হয়েছে। যদি এর মধ্যে বেতন না দেয় তাহলে আলোচনা করে সমস্যা সমাধান করার আশ্বাস দেওয়া হয়।’

সদর উপজেলার ফকির নিটওয়্যার কারখানার তিন শতাধিক শ্রমিককে চাকরি থেকে ছাঁটাই ও পরে বিক্ষোভের মুখে তা প্রত্যাহার করা হয়েছে। গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের জেলা সেক্রেটারি ইকবালী হোসেন আজ একথা জানান।

তিনি বলেন, শ্রমিক বিক্ষোভের পর শিল্প পুলিশ, মালিকপক্ষ ও শ্রমিক নেতাদের উপস্থিতিতে আইডি কার্ড ফেরত দেওয়া ও ছাঁটাই বাতিল করা হয়।

শিল্প পুলিশ-৪ নারায়ণগঞ্জের সহকারী পুলিশ সুপার আইনুল হক  এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, শ্রমিকদের বেতন পরিশোধ করে আইডি কার্ড রেখে ছাঁটাই করার প্রতিবাদে শ্রমিকেরা বিক্ষোভ করেন। পরে মালিকপক্ষের সঙ্গে কথা বলে বিষয়টি সমাধান করা হয়।

Comments


আর্কাইভ